যশোরের র্শাশায় বন্দুকযুদ্ধে শিবিরের ২ নেতা গুলিবিদ্ধ


ইয়ানুর রহমান : শার্শায় পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ দুই শিবির নেতা গুলিবিদ্ধ হয়েছেন। মঙ্গলবার ভোরে শার্শা উপজেলার শিকড়ি বটতলায় এ ঘটনা ঘটে।গুলিবিদ্ধ হলেন- শিবিরের জেলা পশ্চিম শাখার সেক্রেটারি ও এমএম কলেজ রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের শেষ বর্ষের ছাত্র রুহুল আমিন (২৬) এবং একই কলেজের ইসলামী ইতিহাসের প্রথম বর্ষের ছাত্র ও শার্শা উপজেলা কমিটির সভাপতি আবুল কাশেম (২২)। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে একটি ওয়ান শুটারগান, দুই রাউন্ড গুলি, দুটি হাতবোমা এবং ছাত্রশিবিরের চাঁদা আদায়ের রশিদ উদ্ধার করেছে।

বেনাপোল পোর্ট থানার ওসি অপূর্ব হাসান জানান, আটক দুই শিবির নেতাদের স্বীকারোক্তি অনুযায়ী গভীর রাতে শার্শা উপজেলার শিকড়ি বটতলায় জাহাঙ্গীর মেম্বারের ইটভাটার কাছে অস্ত্র উদ্ধারে গেলে এ সময় সেখানে ওৎ পেতে থাকা শিবির ক্যাডাররা পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। পুলিশও পাল্টা গুলি ছুড়ে। গোলাগুলিতে শিবির নেতা রুহুল আমিন ও আবুল কাশেম পায়ে গুলিবিদ্ধ হন। তাদের যশোর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

তবে আহতদের দাবি, পুলিশ মধ্যরাতে চোখ বেঁধে, হাতকড়া পরিয়ে অজ্ঞাত স্থানে নিয়ে তাদের গুলি করেছে।পুলিশের দাবি ঘটনাস্থল থেকে একটি ওয়ান শ্যুটারগান, দুই রাউন্ড গুলি, দুটি হাতবোমা এবং ছাত্রশিবিরের চাঁদা আদায়ের রসিদ উদ্ধার করা হয়েছে।উল্লেখ্য, সোমবার দুপুরে শার্শার বারপোতা গ্রাম থেকে রুহুল আমিন, আবুল কাশেমসহ সাতজনকে আটক করে পুলিশ।

(104)