২০ বছর পর কি বলছেন হোয়াটমোর


 

whatmoreবাংলাদেশে অনুষ্ঠিত টি-২০ বিশ্বকাপ শিরোপা জয় করে দেশে ফিরে লাল গালিচা সংবর্ধনা পাওয়ার দিনে শ্রীলংকার দুই সিনিয়র খেলোয়াড় মাহেলা জয়াবর্ধনে এবং কুমার সাঙ্গাকারা যেমন তাদের অবসরের বিষয়ে শ্রীলংকান ক্রিকেট বোর্ডকে এক হাত নিয়েছেন ঠিক তেমনি সাবেক কোচ ডেভ হোয়াটমোর সরাসরি বললেন, “প্রথমবারের মতো ১৯৯৬ সালে ৫০ ওভারের বিশ্বকাপ জয়ী দলটি ‘যথাযথ সম্মান পায়নি।”

শ্রীলংকা, বাংলাদেশ ও পাকিস্তান দলের কোচের দায়িত্ব পালন করা হোয়াটমোর সুদূর মেলবোর্নে অবস্থান করে সদ্য টি-২০ বিশ্বকাপ জয়ী দলের লাল গালিচা সংবর্ধনার প্রতি লক্ষ্য রাখছিলেন। হোয়াটমোর বলেছেন, ‘এমন সংবর্ধনা দলটির প্রাপ্য।’

১৯৯৬ সালে ক্রিকেট বিশ্বকাপের শিরোপা জয়ী শ্রীলংকান দলের কোচ অতীতের স্মৃতি স্মরণ করে বলেন, সে সময়কার সাপোর্টিং স্টাফরা বোর্ড কর্তৃক ‘ভালো আচরণ’ পায়নি।

তিনি বলেন, “এটা আমি অভিযোগের সুরে, কিংবা আমরা ভিক্ষুক হিসেবে বলছি না। প্রকৃত সত্য হচ্ছে, সে সময় সাপোর্টিং স্টাফদের জন্য কোনো প্রাইজ মানি ছিলো না। কোচ হিসেবে আমাকে এবং দলের ফিজিও হিসেবে অ্যালেক্স কন্টুরিসকে কেবলমাত্র একটি নৈশভোজে দাওয়াত দেয়া হয়েছিল।”

তিনি বলেন, “মজার ব্যাপার হলো বিশ্বকাপ জয়ী দলের সদস্যদের গাড়ি উপহার দেয়া হয়েছিল। মন্ত্রীরা এক লাখ ডলার মূল্যের সে সকল বিলাসবহুল গাড়ির শুল্ক মুক্ত করে দিয়েছিলেন। কয়েকজনকে জমিও দেয়া হয়েছিল। সে সকলই এখন ইতিহাস,মনে করে আজ আমাদের খুব খারাপ লাগছে।”

বর্তমানে অস্ট্রেলিয়ান দলের সিনিয়র ফিজিও কন্টুরিস অবশ্য এই ভেবে শান্তনা পেতে পারেন যে পরবর্তীতে শ্রীলংকান বোর্ড তাকে নতুন করে ট্রেনার হিসেবে নিযোগ দিয়েছে।

(239)